এবার খ্রিস্টানদের অর্থোডক্স চার্চে হামলা চালালো ইসরাইল

 

এবার গাজার একটি অর্থোডক্স চার্চে বোমা হামলা চালিয়েছে ইসরাইল। এতে অন্তত আটজন নিহত হয়েছে। এছাড়া আহত হয়েছে আরো কয়েকজন। হতাহতদের মধ্যে নারী ও শিশুও রয়েছে।
ওয়াফা সংবাদ সংস্থা জানায়, গাজার আল-জয়তুন এলাকার সেন্ট পরফিরাস চার্চে বৃহস্পতিবার হামলা চালানো হয়েছে।

ওয়াফা জানায়, বোমা হামলায় কাউন্সিল অব চার্চ স্টেওয়ার্ডসের ভবনটি পুরোপুরি বিধ্বস্ত হয়েছে। এখানে বেশ কয়েকটি ফিলিস্তিনি পরিবার আশ্রয় নিয়েছিল। খ্রিস্টান ও মুসলিম উভয় সম্প্রদায়ের সদস্যই ছিল তারা। তারা অব্যাহত ইসরাইলি বোমা হামলার মুখে সেখানে গিয়েছিল।

আল জাজিরা আরাবিকের একটি ভিডিও ক্লিকে দেখা যায়, বোমায় আহত দু্জন অ্যাম্বুলেন্সে করে গাজার একটি চিকিৎসা কেন্দ্রে যাচ্ছেন।

উল্লেখ্য, ৭ অক্টোবর থেকে গাজায় অব্যাহতভাবে বোমা হামলা চালিয়ে যাচ্ছে ইসরাইল। অতি সম্প্রতি একটি হাসপাতালে বোমা হামলা হলে অন্তত ৫০০ লোক নিহত হয়।

গাজার পরিস্থিতি ক্রমেই নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাচ্ছে : ডব্লিউএইচও প্রধান
জাতিসঙ্ঘ স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান বুধবার সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, গাজা উপত্যকার পরিস্থিতি ক্রমেই নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাচ্ছে। সেখানের একটি হাসপাতালে ভয়াবহ হামলায় কয়েক শ’ মানুষ নিহত হওয়ার পর তিনি এমন বার্তা দিলেন।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) প্রধান টেড্রোস আধানম ঘাব্রায়েসাস সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম এক্সে পোস্ট করা এক বার্তায় বলেন, ‘গাজার পরিস্থিতি ক্রমেই নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাচ্ছে। অবিলম্বে আমাদের সকল পক্ষের সহিংসতা বন্ধ করা প্রয়োজন।’
তিনি আরও বলেন, ‘প্রতি মুহূর্ত আমরা ওষুধসহ চিকিৎসা সহায়তা পাওয়ার অপেক্ষা করি আর এভাবেই প্রাণ হারাই।’

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার প্রধান বলেন, ‘জীবন রক্ষাকারী বিভিন্ন পণ্যের সরবরাহ শুরু করার জন্য অবিলম্বে আমাদের সেখানে যাওয়া প্রয়োজন।’
সূত্র : আল জাজিরা, এএফপি

সর্বশেষ সংবাদ

জনপ্রিয় গল্প

সর্বশেষ ভিডিও